ভজ রে আনন্দের গৌরাঙ্গ

ভজ রে আনন্দের গৌরাঙ্গ
যদি তরিতে বাসন থাকে ধর রে মন সাধুর সঙ্গ ।।

সাধুর গুন যায়না বলা
শুদ্ধ চিত্ত অন্তর খোলা
সাধুর দরশনে যায় মনের ময়লা
পরশে প্রেমতরঙ্গ ।।

সাধুজনার প্রেম হিল্লোলে
কত মানিক মুক্তা ফলে
সাধু যারে কৃপা করে
প্রেমময় দেয় প্রেমানঙ্গ ।।

একরসে হয় প্রতিবাদী
একরসে ঘুরছে নদী
একরসে নৃত্য করে
নিত্যরসের শ্রী গৌরাঙ্গ ।।

সাধুর সঙ্গগুনে রঙ ধরিবে
পূর্ব স্বভাব দূরে যাবে
লালন বলে পাবে প্রাণের গোবিন্দ
কররে সৎসঙ্গ ।।